আইটেম গানের নামে চলছে অশ্লীলতা

আইটেম গানের নামে চলছে অশ্লীলতা
একটা সময় ছিল যখন বাংলা চলচ্চিত্রে অশ্লীলতার যুগ ছিল। আর এখন চলছে ‘আইটেম গান’র যুগ। চলচ্চিত্র নির্মাণ করলে তাতে আইটেম গান থাকতেই হবে। তা না হলে নাকি ব্যবসা হয় না। এমনটাই বলে থাকেন প্রযোজক, পরিবেশকরা। তাই নির্মাতারাও ব্যবসার কথা ভেবে ধুমধাড়াক্কা আইটেম গানের বন্যা বইয়ে দিচ্ছেন চলচ্চিত্রে। কিন্তু এসব আইটেম গানের নামে অনেকেই নিরবে চলচ্চিত্রে অশ্লীলতার চর্চা শুরু করেছেন। তেমনি একটি আইটেম গানের দৃশ্য ধারণের সময় হাজির হয়েছিলো  রসপুরী টিম।
ছবি* ইন্টারনেট
২২ সেপ্টেম্বর উত্তরার মন্দিরা শুটিং বাড়িতে চলছিল শফিকুল ইসলাম খান পরিচালিত নতুন ছবি ‘অচেনা হৃদয়’ এর আইটেম গানের শুটিং। যদিও নির্মাতা এরই মাঝে কয়েকবার তার নাম পরিবর্তন করেছেন, কখনো এস আই খান, কখনো শফিকুল ইসলাম মিঠু নামে তিনি হাজির হয়েছেন। তার ছবির ক্ষেত্রেও ব্যতিক্রম ঘটেনি। ‘নিঃশব্দ আর্তনাদ’ নামে এই ছবিটির শুটিং শুরু করেছিলেন তিনি এখন এর নাম ‘অচেনা হৃদয়’।
সে যাই হোক, আইটেম গানের শুটিং শুরু হয়েছিল ২২ সেপ্টেম্বর সকাল থেকেই। আইটেম গার্ল হিসেবে নাচছেন সাদিয়া আফরিন। নাচ তো নয় যেন শরীর দেখানোই ছিল তার মূল উদ্দেশ্য। তার বললে ভুল হবে, এটা পরিচালকের আবদার।
এই নাচ দেখলে সুস্থ মস্তিস্কের কেউ আর জীবনে হলে পা রাখবেন বলে মনে হয়না,কিন্তু প্রশ্ন আইটেম গানের নামে এ ধরণের অশ্লীল নাচ দিয়ে কি নির্মাতা দর্শক টানতে পারবেন। চলচ্চিত্রের দর্শক আর যাত্রা প্যান্ডেলের দর্শক কি এক? এ প্রশ্নটা থাকলো নির্মাতার কাছে।


Powered by Blogger.